করোনা আক্রান্ত সিলেট মহানগর শ্রমিকলীগের সভাপতি এম শাহরিয়ার কবির সেলিম সবার কাছে দোয়া চাইলেন

প্রকাশিত: ৪:৪৭ পূর্বাহ্ণ, মে ৩০, ২০২০

করোনা আক্রান্ত সিলেট মহানগর শ্রমিকলীগের সভাপতি এম শাহরিয়ার কবির সেলিম সবার কাছে দোয়া চাইলেন

সিলেটৈর নিউজ টুয়েন্টিফোর ডট কমঃ

করোনাভাইরাসে আক্রান্ত সাবেক কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগ নেতা, সিলেট জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সিনিয়র সহ-সভাপতি ও সিলেট মহানগর শ্রমিকলীগের সভাপতি এম শাহরিয়ার কবির সেলিম সবার কাছে দোয়া চেয়েছেন।
বৃহস্পতিবার কোভিড-১৯ আক্রান্ত হওয়ার বিষয়টি তিনি নিজেই নিশ্চিত করেন। সিলেট ল্যাবে নমুনা পরীক্ষায় তার করোনা সংক্রমণ ধরা পড়ে। এরপর তিনি বাসায় আইসোলেশনে চলে যান।
অসহায় মানুষদের পাশে নিরলস ভাবে কাজ করতে গিয়ে অনেকেই আজ করোনাভাইরাসে আক্রান্ত। তাদের মধ্যে শ্রমিক বান্ধব নেতা এম শাহরিয়ার কবির সেলিম অসহায় শ্রমজীবী মানুষের কথা ভেবে পুরো রমজান মাস নিজের আত্নীয় স্বজন, প্রবাসী বন্ধু মহলসহ শুভাকাঙ্খীদের থেকে সংগ্রহ করে এবং নিজের ব্যক্তিগত তহবিল থেকে সাধ্যমত খাদ্য সামগ্রী নিয়ে মানুষের পাশে ছিলেন।
মহামারী করোনাভাইরাসের প্রভাবে সৃষ্ট অর্থনৈতিক ক্ষতি ও উদ্ভুত পরিস্থিতি মোকাবিলায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা নির্দেশন দিয়ে ছিলেন। দেশের সব বিত্তশালীরা যেন জনগণের পাশে থাকেন। কিন্তু সমালোচিত হয়েছেন অনেক জনপ্রতিনিধি। ত্রাণ সামগ্রী আত্মসাতসহ নানা অভিযোগ উঠেছে অনেকের বিরুদ্ধে। এমন সমালোচনার মধ্যেও ক’জন রাজনৈতিক ব্যক্তি জীবনের ঝুঁকি নিয়ে মাঠে ময়দানে করোনা মোকাবিলায় প্রধানমন্ত্রীর নিবেদিত কর্মী হিসেবে নিরলস ভাবে কাজ করে দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছেন। এরই মধ্যে এম শাহরিয়ার কবির সেলিম। কোভিড-১৯-এর আক্রমণ ঠেকাতে পুরো দেশের মানুষ যখন ঘরবন্দি, তখন তিনি পাশে দাঁড়াচ্ছেন অসহায় মানুষদের।
বিপদগ্রস্থ মানুষদের বাসায় বাসায় খুজে খাদ্য পৌছে দেওয়া, বাধ্য হয়ে বাইরে বের হওয়া মানুষদের ‘সামাজিক দূরত্ব’-এর ধারণা দেওয়াসহ কাজ না থাকা দিনমজুর মানুষদের খাবারের ব্যবস্থা করার চেষ্টা করছেন তিনি। এম শাহরিয়ার কবির সেলিম নিউজ পোর্টাল সিলেটের নিউজ টুয়েন্টিফোর ডট কম’র সম্পাদক, দৈনিক যুগভেরীর স্টাফ রিপোর্টার এম ইজাজুল হক ইজাজ এর সাথে ফোনালাপে সবার কাছে দোয়া চেয়েছেন। সাবেক ছাত্রনেতা ও মহানগর শ্রমিকলীগের সহ-সভাপতি এনামুল হক লিলু উনার সাথে নিয়মিত যোগযোগ আছে এম শাহরিয়ার কবির সেলিম তিনি আরো জানান বাসায় তাঁর বৃদ্ধ মা নিজের হাতে মাকে খাওয়াছেন মায়ের জন্য চিন্তিত। নিজের কথা কখনও তিনি ভাবেননি শুধু বলেন এ ক্লান্তিলগ্নে শ্রমজীবী মানুষের সেবা করতে পারবেননা বলে তিনি অনুসুচনা করেন। মহান আল্লাহ যেন তাকে নেক হায়াত দান করেন এ মুহুর্তে তিনি সুস্থ আছেন ।

Sharing is caring!

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

shares