জগন্নাথপুর শ্রীরামসী প্রবাসীর বাড়িতে অন্ধপ্রতিবন্ধিকে প্রাণে হত্যার চেষ্টা 

প্রকাশিত: ১:৩৮ অপরাহ্ণ, আগস্ট ৫, ২০২০

জগন্নাথপুর শ্রীরামসী প্রবাসীর বাড়িতে অন্ধপ্রতিবন্ধিকে প্রাণে হত্যার চেষ্টা 

সিলেটের নিউজ টুয়েন্টিফোর ডট কমঃ

জগন্নাথপুর উপজেলার শ্রীরামসীতে পবিত্র ঈদুল আযহার দিন পূর্বপরিকল্পিত’ সন্ত্রাসী হামলার শিকার হয়েছেন নিরীহ অন্ধ লোক গেীছ মিয়া(৫৫)।
ঈদের দিন শনিবার দুপুর সাড়ে ১১টা এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনার তদন্ত করেন জগন্নাথপুর থানার এস আই অনুজ কুমার দাশ। তিনি অন্ধপ্রতিবন্ধি গৌছ মিয়ার উপর আঘাতের সত্যতা নিশ্চিত করেন।
জানা যায়, শ্রীরামসী প্রবাসী আব্দুল মতিন দীর্ঘদিন যাবৎ যুক্তরাজ্যে স্বপরিবার নিয়ে বসবাস করছেন। বাড়িতে কেউ নেই তিনি কুরবানী দেয়ার জন্য নিকট আতœীয় বিলাল মিয়ার কাছে কুরবানীর টাকা দেন। ১লা আগস্ট ঈদের দিন বিলাল মিয়া প্রবাসী আব্দুল মতিন মিয়ার অনুজ আ্দুস সালাম মিয়ার সাথে বাড়িতে কোরবানী দেয়ার বিষয়ে শলাপরামর্শ করে বাড়ির এক সাইটে কুরবানী দেয়ার প্রস্ততি নেন। গৌছ মিয়া ছাতক হইতে তাহার সাথে ছোট একটি ছেলে নিয়া আব্দুস সালাম মিয়ার বাড়িতে আসেন। গৌছ মিয়া আব্দুস সালাম ও আব্দুল মতিন মিয়ার আতœীয় হন। গেীছ মিয়া আব্দুস সালাম মিয়ার একটি ঘরে বসে থাকাবস্থায় প্রবাসীর আব্দুল মতিন মিয়ার সাথে ছোট ভাই আব্দুস সালাম মিয়ার বিরোধ থাকায় ঘরের দরজা বন্ধ করিয়া গৌছ মিয়াকে এলোপাথারি মারপিট শুরু করে। আফিয়া বেগম ও মিসনারা বেগম গৌছ মিয়াকে ধরিয়া রাখিলে আব্দুস সালাম ঘর হইতে লোহার রড দিয়া গৌছ মিয়াকে এলোপাথারিভাবে শরীরের বিভিন্নস্থানে আঘাত করে। এ সময় শিপন আলী(২৫) তার হাতে থাকা রামদা দিয়ে গৌছ মিয়াকে প্রাণে হত্যার উদ্দেশ্যে লক্ষ করিয়া আঘাত করিলে লক্ষভ্রষ্ট হয়ে গৌছ মিয়ার বাম কাদে পরিয়া মারাতœক জখম হয়। শিমুল(২২) তার হাতে থাকা লোহার রড দিয়া গৌছ মিয়ার দু হুরুতে মারাতœক আঘাত করিলে জখম করিলে তাদের হাত হইতে প্রাণে বাচার জন্য গৌছ মিয়া চিৎকার করিলে প্রতিবেশী মো. শাহজাহান মিয়া, ছালেক মিয়া, আব্দুর রহমান আগাইয়া আসিলে তাদের সামনে আব্দুস সালাম মিয়ার লোক ঘরের গেইট বন্ধ করিয়া গৌছ মিয়াকে মাঠিতে ফেলে কিল ঘুষি লাথি মারিয়া তার সাথে থাকা বিভিন্ন লোকের ঈদের সাহায্য দেয়া নগদ দশ হাজার টাকা ও গৌছ মিয়ার ব্যবহৃত মোবাইল ফোন জোড়পূর্বক নিয়া যায়। আব্দুস সালাম হুকুম দিয়া বলে যে গেইটের বাহিরে শালারবেটাদের প্রাণে মারিয়া কোরবানী দেয়ার স্বাদ মিটাইয়া দাও। উক্ত হুকুমের সাথে সাথে তাদের হাতে রামদা, দা, লোহার রট ইত্যাদি নিয়া আগাইয়া আসিলে প্রাণ বয়ে কোরবানীর গরু রাখিয়া দৌড়াইয়া প¦ার্শবর্তী দুুদু মিয়ার বাড়িতে গিয়া প্রাণ রক্ষা করে। আব্দুস সালাম মিয়াদের গোষ্টির মুরব্বি হাজি মমশ্বির আলী ও বীর মুক্তিযোদ্ধা ইলিয়াস আলী ও বর্তমান মেম্বার মাহবুব হোসেনকে মোবাইল করিয়া ঘটনার বিষয় জানিয়ে দুদু মিয়ার বাড়িতে বিষয়টি দেখার আব্দুস সালাম মিয়ার বাড়িতে যাওয়ার জন্য রওনা দিয়া দুদু মিয়ার বাড়ির পুকুর পাড়ে আসিয়া গৌছ মিয়াকে পুকুর পাড়ে রক্তাক্তবস্থায় দেখিয়া তাহার বাড়িতে নিয়া গৌছ মিয়ার নিকট হইতে ঘটনার বিস্তারিত শুনেন। গৌছ মিয়ার নিকট হইতে ঘটনা বিস্তারিত শুনিয়া আব্দুস সালামের বাড়িতে গেলে হাজি মমশ্বির আলী দুুদু মিয়া ও মেম্বার মাহবুব হোসেন সাথে আব্দুস সালাম মিয়া খারাপ আচরণ করিয়া বাড়ি হইতে বাহির করিয়া দেন। পরবর্তীতে মতিন মিয়ার লোকজন জগন্নাথপুর থানায় যোগাযোগ করিয়া ঘটনার কথা বলিয়া আইনী সাহায্য চাহিলে জগন্নাথপুর থানার এস আই অনুজ কুমার ঘটনার বিস্তারিতা জানেন এবং গৌছ মিয়াকে চিকিৎসার জন্য জগন্নাথপুর হাসপাতালে প্রেরণ করেন। এ ব্যাপারে থানায় অভিযোগ দায়েরের প্রস্ততি চলছে।

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ